Sunday, March 3, 2024
মূলপাতানেত্রকোনার সংবাদদূর্গাপুর উপজেলানেত্রকোনার দুর্গাপুরে পৃথক স্থানে পানিতে ডুবে দুজনের মৃত্যু

নেত্রকোনার দুর্গাপুরে পৃথক স্থানে পানিতে ডুবে দুজনের মৃত্যু

নেত্রকোনা জেলার দুর্গাপুরে পৃথক দুটি ইউনিয়নে পানিতে ডুবে সুচিলা হাজং (৫৫) ও ডোবায় পড়ে প্রতিবন্ধী যুবক আব্দুল মালেক (২৭) নিহত হয়েছেন। পুলিশ ও স্থানীয় সূত্রে জানা গেছে, নেত্রকোনার দুর্গাপুরের কুল্লাগড়া ইউনিয়নের আড়াপাড়া গ্রামের জ্ঞানেন্দ্র হাজংয়ের স্ত্রী সুচিলা হাজং গত বৃহস্পতিবার নিখোঁজ হন। ওইদিন বিকালে নিজ বাড়ি থেকে গুচ্ছগ্রামে আত্মীয়ের বাড়ি যাচ্ছিলেন।

বাড়ির লোকজন আত্মীয়ের বাড়িতে থাকার কথা মনে করে পরদিন যখন বাড়ি ফিরে আসেনি তখন খোঁজাখুঁজি করে। নিখোঁজের দুদিন পর আজ শনিবার সকালে ছনগড়া পাহাড়ি খালে (ছড়া) স্থানীয়রা লাশ দেখতে পেয়ে পুলিশে খবর দেয়। পুলিশ গিয়ে নিখোঁজের স্বজনদের নিয়ে সুচিলা হাজংয়ের মরদেহ নিশ্চিত করে।

সাঁতার না জানায় পাহাড়ি খালের পানিতে ডুবে মারা যায় বলে স্বজন ও পুলিশ নিশ্চিত হয়ে আবেদনের প্রেক্ষিতে লাশ পরিবারের নিকট হস্তান্তর করা হয়। অন্যদিকে একই উপজেলার কাকৈরগড়া ইউনিয়নের ইন্দ্রপুরে বাড়ির অদূরে ডোবা থেকে আব্দুল মালেক (২৭) নামের এক যুবকের লাশ উদ্ধার করা হয়েছে। ওই যুবক আজিজুল ইসলামের ছেলে। ছোটবেলায় টাইফয়েড হয়ে প্রতিবন্ধী হয়ে পড়েন। এরপর গত শুক্রবার বাড়ির অদূরে সড়কের পাশে ভেকু দিয়ে মাটি তোলার ডোবার পানিতে পড়ে গিয়ে আর উঠতে পারেনি। বাড়ির মানুষ খোঁজাখুঁজি করে শনিবার সকালে ডোবায় লাশ পায়।

দুর্গাপুর থানার ওসি মোহাম্মদ শিবিরুল ইসলাম সত্যতা নিশ্চিত করেছেন। তিনি বলেন ১০ থেকে ১২ ফিট পানিতে প্রতিবন্ধী যুবকটি পড়ে গিয়ে আর উঠতে পারেনি। দুটি মৃত্যুই সাঁতার না জানার কারণে ঘটেছে। নিহতের পরিবার ও স্থানীয়রা নিশ্চিত করায় সুরতহাল প্রতিবেদন করে লাশ দেয়া হয়।

এই বিভাগের আরও সংবাদ

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here

This site uses Akismet to reduce spam. Learn how your comment data is processed.

সর্বশেষ সংবাদ

Recent Comments