Saturday, December 3, 2022
মূলপাতানেত্রকোনার সংবাদমদন উপজেলাচিকিৎসককে হত্যার হুমকিতে যুবলীগ নেতার বিরুদ্ধে থানায় মামলা

চিকিৎসককে হত্যার হুমকিতে যুবলীগ নেতার বিরুদ্ধে থানায় মামলা

চিকিৎসককে হত্যার হুমকি দেয়ার অভিযোগে ইমরান হোসেন নামে স্থানীয় যুবলীগ নেতার বিরুদ্ধে থানায় অভিযোগ দায়েরের খবর পাওয়া গেছে। নেত্রকোনার মদন থানায় মঙ্গলবার (১০ আগস্ট) দিবাগত রাতে অভিযোগটি দায়ের করেছেন উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সের চিকিৎসক ডাক্তার এ কে এম রিফাত সাঈদ। তিনি হত্যার হুমকির অভিযোগ এনে জীবনের নিরাপত্তা চেয়ে অভিযোগটি দায়ের করেছেন। অভিযুক্ত ইমরান হোসেন পৌরসভার মাহমুদপুর গ্রামের মৃত দুলাল মিয়ার ছেলে ও মদন উপজেলা যুবলীগের উপ-প্রচার সম্পাদক।

পুলিশ ও হাসপাতাল সূত্রে জানা গেছে, ইমরান হোসেন কিছু কাগজপত্র সত্যায়িত করার জন্য সম্প্রতি মদন উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সের চিকিৎসক ডাক্তার রিফাত সাঈদের কাছে যান। কাগজপত্র সঠিক না থাকায় সত্যায়িত করতে অপারগতা প্রকাশ করেন চিকিৎসক। এর পর থেকে বিভিন্ন সময়ে ইমরান হোসেন ডাক্তার রিফাত সাঈদকে দেখে নেয়ার হুমকি দিয়ে আসছিলেন।

এরই ধারবাহিকতায় গত মঙ্গলবার (১০ আগষ্ট) পৌরসভার মহিউদ্দিন মার্কেটের সামনে ডাক্তার রিফাক সাঈদকে পেয়ে মারপিট করতে উদ্ধুত হন যুবলীগ নেতা ইমরান হোসেন। এসময় ডাক্তারকে হত্যা করে লাশ গুম করার হুমকি প্রদান করে চলে যান তিনি। এ ঘটনায় চরমভাবে ঝুঁকিপূর্ন পেশা মনে করে জীবনের নিরাপত্তা চেয়ে ডাক্তার এ কে এম রিফাত সাঈদ মদন থানায় একটি সাধারণ ডায়েরী করেন।

এ ব্যাপারে যুবলীগ নেতা ইমরান হোসেন জানান, আমাকে দেখে ডাক্তার রিফাত সাঈদ সরকারের বিভিন্ন কর্মকান্ড ও রাজনীতি নিয়ে কটাক্ষ করেছে। আমি যুবলীগের উপ-প্রচার সম্পাদক হিসেবে এর প্রতিবাদ করেছি। এ সময় রিফাত সাঈদ আমাকে দেখে নেয়ার হুমকি দিয়েছেন।

অভিযোগ দায়ের কারী চিকিৎসক বলেন, সঠিক কাগজ না থাকায় আমি সত্যায়িত করতে পারিনি বলে প্রায় দিনই দেখা হলে ইমরান আমাকে গালমন্দ করতেন। প্রায় সময় পথরোধ করে অকথ্য ভাষায় গালমন্দ করে সবশেষ মঙ্গলবার রাতে মোটরসাইকেল রোধ করে মেরে লাশ গুম করার হুমকি দেন।

মদন উপজেলা স্বাস্থ্য ও পরিবার পরিকল্পনা কর্মকর্তা ডাক্তার মোহাম্মদ হাছানুল হোসেন প্রাণনাশের হুমকির বিষয়টিকে খবুই দুঃখ জনক উল্লেখ করে উর্ধ্বতন কর্তৃপক্ষের সাথে আলোচনা পরবর্তী পদক্ষেপ গ্রহণ করা হবে বলে জানান।

মদন থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) ফেরদৌস আলম জানান, এ বিষয়ে চিকিৎসক মদন থানায় একটি সাধারণ ডায়েরী করেছেন। তদন্ত সাপেক্ষে আইনগত ব্যবস্থা গ্রহণ করা হবে।

এই বিভাগের আরও সংবাদ

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here

- Advertisment -

সর্বশেষ সংবাদ

Recent Comments